Dhaka, Bangladesh
    বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৯
    ২৩ Rabi' I, ১৪৪১
    ওয়াক্তসময়
    সুবহে সাদিকভোর ৪:৫৭ পূর্বাহ্ণ
    সূর্যোদয়ভোর ৬:১৬ পূর্বাহ্ণ
    যোহরদুপুর ১১:৪৪ পূর্বাহ্ণ
    আছরবিকাল ২:৫০ অপরাহ্ণ
    মাগরিবসন্ধ্যা ৫:১২ অপরাহ্ণ
    এশা রাত ৬:৩০ অপরাহ্ণ
Facebook By Weblizar Powered By Weblizar

আবুল হোসেন রিপন, খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি ॥

খাগড়াছড়ির দীঘিনালা-বাঘাইছড়ি সড়কের রাবার বাগান নামক এলাকায় উপজাতি সন্ত্রাসী কর্তৃক মারিশ্যা বাজারের মুদি পন্যবাহী ট্রাকে (চট্রমেট্রো-ট-১১-২৩৩৮) আগুন দেয়ার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে তাৎক্ষনিক খাগড়াছড়ি শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদ, খাগড়াছড়ি জেলা শাখা। মিছিলটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে।


বিক্ষোভ মিছিলে জেলা সভাপতি মোঃ আসাদুল্লাহ আসাদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পিবিসিপির সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ও বাঘাইছড়ির সাবেক পৌর মেয়র মোঃ আলমগীর কবির।

এতে অন্যান্যের মধ্যে সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ও খাগড়াছড়ি পৌরসভার কাউন্সিলর ইঞ্জি. আব্দুল মজিদ, বাঘাইছড়ি উপজেলা পরিষদেও ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল কাইয়ুম, জেলা শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি সুমন আহমেদ, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক মোঃ সাইফুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক অশ্রাফুল আলম রনি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মিছিল শেষে প্রতিবাদ সমাবেশে পিবিসিপি নেতৃবৃন্দ বলেন, বাঘাইছড়ি উপজেলা নির্বাচনে যে হতাহতের ঘটনা ঘটেছে, তার বিচার না হওয়ায় সন্ত্রাসীদের এসব অপকর্ম বেড়ে চলেছে, যার দায় প্রশাসন কোন ভাবেই এড়াতে পারেনা। এছাড়া যারা সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজির মাধ্যমে পার্বত্য অঞ্চলকে অস্থিতিশীল করে জুম্মল্যান্ড গড়ার সপ্ন দেখছে তাদেও দ্রুত চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের প্রতি জোর দাবী জানান বক্তারা। প্রশাসন দোষীদের গ্রেপ্তারে ব্যর্থ হলে পার্বত্যবাসিকে সাথে নিয়ে হরতাল ও অবরোধের মতো কঠোর কর্মসূচি দেওয়ার হুশিয়ারিও জানান নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য, গত সোমবার চট্টগ্রাম থেকে মারিশ্যা বাজারের মুদি মালবাহী ট্রাক দীঘিনালা-বাঘাইছড়ি সড়কের রাবার বাগান এলাকায় পৌঁছালে আগে থেকে ওৎ পেতে থাকা উপজাতি সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা গাড়ির গতিরোধ করে গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। এঘটনায় গাড়িতে থাকা সব মালামাল পুড়ে যায়। এতে প্রায় ৩০-৩৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে জানান ব্যবসায়ীরা।